রবিবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২৩, ০৭:২৯ পূর্বাহ্ন

নোটিশঃ
দেশের বিভিন্ন জেলা ও উপজেলায় জিটিবি নিউজ এর সাংবাদিক  নিয়োগসহ পরিচয় পত্র নবায়ণ চলছে।
সংবাদ শিরোনামঃ
প্রধানমন্ত্রীর জনসভা: রাজশাহীতে চলবে বিশেষ ৭ ট্রেন বগুড়ার একটি সংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন ৪২ বগুড়া-০৭ এর সংসদ সদস্য মোঃ রেজাউল করিম বাবলু রুপসীপল্লী টাওয়ার অল্প টাকায় সাধ্যের মধ্যে মানসম্মত ফ্লাট দিতে সক্ষম প্রধানমন্ত্রীকে বরণে রাজশাহী নগরীজুড়ে বর্ণিল সাজ গভীর রাতে হিরো আলমের জন্য বগুড়ায় ভোট চাইলেন চিত্রনায়িকা মুনমুন পদযাত্রা দিয়ে বিএনপির নতুন আন্দোলন শুরু: ফখরুল বিএনপির পদযাত্রা নয় মরণযাত্রা শুরু হয়ে গেছে: কাদের আফগানিস্তানফেরত ফখরুল হাল ধরেন হুজির, ছিল বড় হামলার পরিকল্পনা রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় ‘সেকেন্ড টাইম’ ভর্তি পরীক্ষা নিয়ে শঙ্কায় শিক্ষার্থীরা দিন যায় বৈঠক হয়, স্থানান্তর হয় না কারওয়ান বাজার

রাজশাহীতে জনসভা করবেন শেখ হাসিনা, ৭ লাখ লোক সমাগমের আশা

নিজস্ব প্রতিবেদক: দীর্ঘ পাঁচ বছর পর আগামী ২৯ জানুয়ারি (রবিবার) রাজশাহীতে আসছেন আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। প্রধানমন্ত্রীকে বরণ করে নিতে এরই মধ্যে প্রস্তুতি শুরু করেছে স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা। ব্যস্ত সময় পার করছেন ওয়ার্ড, নগর ও জেলার দায়িত্বপ্রাপ্ত নেতারা। এবারের সমাবেশে সাত লাখ মানুষের সমাগমের প্রত্যাশা করছে স্থানীয় আওয়ামী লীগ।

স্থানীয় নেতারা বলছেন, শুধু রাজশাহীবাসী নয়, আশপাশের জেলাগুলোতেও ছড়িয়ে পড়বে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সভাপতির আগমনী উৎসবের আমেজ। আসন্ন জাতীয় নির্বাচনে উন্নয়নের প্রতীক নৌকায় ভোট চাইতে আসছেন তিনি।

এটি আওয়ামী লীগের ২২তম জাতীয় সম্মেলনের পর প্রথম নির্বাচনি সমাবেশ। এর আগে ২০১৮ সালের ২২ ফেব্রুয়ারি রাজশাহীর ঐতিহাসিক মাদ্রাসা ময়দানে জেলা ও মহানগর আওয়ামী লীগ আয়োজিত সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে শেখ হাসিনা উপস্থিত জনতার কাছে আওয়ামী লীগের জন্য ভোট চান। এ ছাড়াও ২০১৩ সালের ৫ সেপ্টেম্বর রাজশাহীর বাগমারা ও ২০১৪ সালের ৮ ফেব্রুয়ারি চারঘাটে আওয়ামী লীগের জনসভায় যোগ দেন তিনি। ২০১৭ সালের ১৪ সেপ্টেম্বর রাজশাহীর পবায় দলীয় জনসভায় হাজির হয়েছিলেন শেখ হাসিনা।

রাজশাহী মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ডাবলু সরকার বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আগমন উপলক্ষে রাজশাহীর সব নেতাকর্মী ব্যস্ত সময় পার করছেন। ওয়ার্ডে ওয়ার্ডে সভা করা হচ্ছে। ১১ জানুয়ারি জাতীয় নেতৃবৃন্দ মাঠ পরিদর্শনে আসবে। ১৪ জানুয়ারির পর ব্যাপকভাবে প্রচার-প্রচারণা শুরু হবে।’

রাজশাহী মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মোহাম্মদ আলী কামাল বলেন, ‘সমাবেশকে সামনে রেখে এখন পরিকল্পনা ও কাজ দুটোই চলমান। সমাবেশকে সফল করতে পুরো নকশা রেডি করা হচ্ছে। ৬-৭ লাখ মানুষের সমাগমের টার্গেট রেখে ব্যবস্থাপনা করা হচ্ছে। শুধু মাদ্রাসা মাঠে নেতাকর্মীদের ঢল সামাল দেওয়া যাবে না। তাই পাশের ঈদগাহ ময়দানে মাল্টিমিডিয়া প্রোজেক্টরের ব্যবস্থা করা হবে।’

তিনি আরও বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রীর আগমন উপলক্ষে ১০০টি তোরণ নির্মাণ করা হবে। পুরো নগরীকে উৎসবের আমেজে সাজানো হবে। সমাবেশে প্রধানমন্ত্রী মূলত ভোট চাইতেই আসছেন। এ ছাড়া আমাদের কিছু প্রত্যাশাও আছে। সেগুলো ওনাকে জানাবো।’

এদিকে, প্রধানমন্ত্রীর আগমন উপলক্ষে রাজশাহী সিটি করপোরেশনের পরিচ্ছন্ন বিভাগের এক সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার (৫ জানুয়ারি) দুপুরে নগর ভবনের সরিৎ দত্ত গুপ্ত সভাকক্ষে রাজশাহী সিটি করপোরেশনের বর্জ্য ব্যবস্থাপনা স্থায়ী কমিটির সভাপতি প্যানেল মেয়র-১ ও ১২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর সরিফুল ইসলাম বাবুর সভাপতিত্বে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

এদিকে, বৃহস্পতিবার বিকালে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও রাজশাহী সিটি করপোরেশনের মেয়র এ এইচ এম খায়রুজ্জামান লিটন বলেছেন, ‘ঐতিহাসিক মাদ্রাসা মাঠে সাম্প্রতিক সময়ে বিএনপির মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর সমাবেশ করে গেছেন। সেখানে আমরা দেখেছি ৫/৭ হাজারের বেশি মানুষ তারা আনতে পারেনি। তার কয়েকদিন পরে সেখানেই আমরা দেখাতে চাই, এই রাজশাহী অঞ্চলের মানুষ নৌকার প্রতি আস্থা স্থাপন করেছে এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়নে মুগ্ধ হয়ে নৌকার প্রতি ঝুঁকে পড়েছে, সেটি আমরা ২৯ জানুয়ারি প্রমাণ করবো ইনশাল্লাহ।’

আগামী ২৯ জানুয়ারি রাজশাহীতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আগমন উপলক্ষে বৃহস্পতিবার বিকালে ঐতিহাসিক মাদ্রাসা মাঠ পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন। মেয়র আরও বলেন, ‘ঐতিহাসিক মাদ্রাসা মাঠ আমরা প্রাথমিক পরিদর্শন করলাম। এই মাঠে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে নিয়ে একাধিক জনসভা করার অভিজ্ঞতা আমাদের রয়েছে। সেই অনুযায়ী আমরা প্রস্তুতি নিচ্ছি। ২৯ জানুয়ারি শুধু মাদ্রাসা মাঠই নয়, পুরো রাজশাহী লোকে লোকারণ্য হয়ে যাবে।’

এই জনসভা সফল করার লক্ষ্যে বুধবার বিকাল ৪টায় কুমারপাড়ার দলীয় কার্যালয়ে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ, রাজশাহী জেলা ও মহানগরের যৌথ সভা অনুষ্ঠিত হয়। সেখানে জনসভা সফল করার লক্ষ্যে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ, রাজশাহী জেলা ও মহানগরের সমন্বয়ে ১০টি উপ-কমিটি গঠন করা হয়। পরে উপ-কমিটিগুলো পূর্ণাঙ্গ করা হবে। রাজশাহী জেলা ও মহানগরে ব্যাপক প্রচার-প্রচারণা চালানো হবে। আগামী ১১ জানুয়ারি বুধবার সকাল ১১টায় রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ অডিটোরিয়ামে রাজশাহী বিভাগীয় প্রতিনিধি সভা অনুষ্ঠিত হবে।

 

নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © gtbnews24.com
Web Site Designed, Developed & Hosted By ALL IT BD 01722461335