সোমবার, ০৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৬:০৭ অপরাহ্ন

নোটিশঃ
দেশের বিভিন্ন জেলা ও উপজেলায় জিটিবি নিউজ এর সাংবাদিক  নিয়োগসহ পরিচয় পত্র নবায়ণ চলছে।
সংবাদ শিরোনামঃ

প্রেসিডেন্ট বাইডেনের প্রেমের প্রস্তাব

জিটিবি নিউজ ডেস্ক : প্রেমে পড়লে মানুষ কি না করে! সে রাস্তার ভিখারি হোক আর রাজপ্রাসাদের মালিক! তবে সেই ব্যক্তি যদি হন বিশ্বের সবচেয়ে ক্ষমতাশীল দেশের প্রেসিডেন্ট, তাহলে তো সেই গল্প জানার আগ্রহটা সীমা ছাড়িয়েই যায়। সম্প্রতি মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন নিজের মুখেই জানালেন তার একপাক্ষিক প্রেমের কাহিনী। প্রথম দেখাতেই প্রেমে পরে যাওয়া স্ত্রী জিলের কাছে নিজের ভালোবাসার প্রস্তাব জাহির করেছেন বাইডেন। একবার, দুইবার নয়। পাঁচ পাঁচবার তিনি প্রস্তাব দিয়েছিলেন বর্তমান ফার্স্টলেডিকে! সম্প্রতি ড্রিও ব্যারিমোর শো’তে উপস্থিত হয়ে নিজের জীবনের এই মধুরতম মুহূর্তটি শেয়ার করলেন বাইডেন। বাইডেন-জিলের প্রেমকাহিনী যদিও কারো অজানা নয়। তবে নতুন করে সেই মুহূর্তটি আবারো স্মরণ করেন প্রেসিডেন্ট বাইডেন। সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন জিল নিজেও। ড্রিও ব্যারিমোর শো’তে বাইডেন ও জিল বাইডেন বলেন, প্রথম স্ত্রীর মৃত্যুর পর আর কারো সাথে জড়ানোটা সহজ ছিল না তার জন্য। কিন্তু শেষ পর্যন্ত তার ভাই তার জন্য একটি ব্লাইন্ড ডেট এর আয়োজন করেন যেখানে প্রথমবারের মতো তিনি জিলের সাক্ষাৎ করেন। ‘ব্লাইন্ড ডেট’ হচ্ছে এক ধরনের ডেটিং যেখানে দুইজন মানুষ প্রথমবারের মতো একে অন্যের সাথে সাক্ষাৎ করে। জিলের সাথে ডেটিংয়ের জন্য নিজেকে প্রস্তুত করেছিলেন তিনি। জিলকে দেখামাত্র তাৎক্ষণিকভাবে তার প্রেমে পড়েছিলেন বাইডেন। প্রেসিডেন্ট জানান, জিলই সেই দ্বিতীয় নারী যাকে তিনি বিয়ে করতে চেয়েছিলেন। যদিও এই বয়সে কাজটা কঠিন ছিল, তবে এজন্য ছেলেদের ধন্যবাদ জানান বাইডেন। তাদের সমর্থন তাকে সাহস জুগিয়েছে বলেও জানান তিনি। প্রেসিডেন্ট আরো বলেছেন তার ছেলে বিউ এবং হান্টার, উভয়েই সম্মদি দিয়েছিল এই বিয়েতে। জিলকে বিয়ে করতে পারেন তিনি, এমনটাই মতামত দিয়েছিলেন দুই ছেলে। বাইডেন মনে করেন, জিল নিজেও বাইডেনের বাচ্চাদের নিজের সন্তান হিসেবেই দেখছিলেন। অবশেষে তাকে জয় করেছিলেন বাইডেন। ড্রিও ব্যারিমোর নিজের প্রেমের গল্প শেয়ার করে বাইডেন জানান, “তখন তিনি দক্ষিন আফ্রিকায় ছিলেন। নেলসন ম্যান্ডেলার সাথে দেখা করার চেষ্টা করছিলেন। সেখান থেকে ফিরে তিনি সোজা ফিলাডেলফিয়ায় জিলের বাড়িতে গিয়ে হাজির হন। তার দরজায় গিয়ে কড়া নাড়েন এবং তাকে প্রস্তাব দেন। এর আগেও চারবার প্রস্তাব দিয়ে তিনি তাকে রাজি করাতে পারেননি। এটা ছিল পঞ্চমবার। হয় প্রেম, নয়তো ত্যাগ- এমন আল্টিমেটাম দিয়ে বসেন জিলকে। আর তাতেই সাড়া দেন ফার্স্ট লেডি জিল। নতুন এক সম্পর্কের শুভ সূচনা করেন বাইডেনের সাথে। বাইডেন ও জিল (পুরনো দিনের ছবি) বাইডেনের প্রথম স্ত্রী নিলিয়া হান্টার বাইডেন ১৯৭২ সালে একটি গাড়ি দুর্ঘটনায় মারা যান। সেই দুর্ঘটনায় তাদের ১ বছর বয়সী কন্যা নাওমিও মারা যায়। দীর্ঘদিন একা থাকার পর ১৯৭৭ সালে জিল জেকবসকে বিয়ে করেন বাইডেন৷ এই দম্পতির একটি কন্যা রয়েছে, নাম অ্যাশলি৷ সূত্র : টিএমজে

নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © gtbnews24.com
Web Site Designed, Developed & Hosted By ALL IT BD 01722461335