মঙ্গলবার, ০৫ মার্চ ২০২৪, ০৮:১৪ পূর্বাহ্ন

কাশ্মীর যাচ্ছেন ইউরোপীয় আইনসভার সদস্যরা

জিটিবি নিউজ টুয়েন্টিফোর : ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার সংবিধান থেকে ৩৭০ ধারা বিলোপের পর প্রায় তিন মাস হয়ে গেছে।কেমন আছে জম্মু-কাশ্মীর? উপত্যকার হালহকিকত জানতে সেখানে  সরেজমিনে যাচ্ছে ইউরোপের আইনসভার এক প্রতিনিধিদল। সেই দলে থাকবেন ২৮ জন সদস্য। আজ মঙ্গলবার কাশ্মীরে পা রাখবেন ওই প্রতিনিধিরা।

জানা গেছে, আজ ওই  প্রতিনিধি দলের সঙ্গে কথা বলেছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। দ্ব্যর্থহীন ভাষায় বুঝিয়ে দিলেন সন্ত্রাসবাদ রুখতে সকলকে এক হতে হবে। পাশাপাশি উপত্যকা সফর ইউরোপীয় আইনসভার সদস্যদের জন্য ফলপ্রসূ হোক তার শুভেচ্ছা জানালেন নরেন্দ্র মোদি। শুধু  নরেন্দ্র মোদি নয়, জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা অজিত দোভালের সঙ্গেও দেখা করলেন বিদেশি প্রতিনিধিদলের সদস্যরা।

উপত্যকা থেকে বিশেষ মর্যাদা প্রত্যাহারের পর এই প্রথম কোনও বিদেশি প্রতিনিধিদল ভূ-স্বর্গে যাচ্ছেন। বিষয়টি জানাজানি হতেই পিডিপি নেত্রী মেহবুবা মুফতির তরফে টুইট করেছেন তাঁরা মেয়ে ইলতিজা।  মায়ের টুইটার হ্যান্ডেল থেকে তিনি লিখেছেন,আশা করি ওই প্রতিনিধিদলের সদস্যরা এখানকার মানুষের সঙ্গে কথা বলবেন। স্থানীয় সংবাদমাধ্যম, চিকিৎসক ও সমাজের অন্যান্য শ্রেণির মানুষের সঙ্গে কথা বলে আসল রহস্যটা উদঘাটন হবে।’

এদিকে, কাশ্মীরে ইউরোপীয় প্রতিনিধিদলের যাওয়া নিয়ে কটাক্ষ করেছে কংগ্রেস।  কংগ্রেস নেতা জয়রাম রমেশ টুইটে লিখেছেন, ভারতের বাসিন্দা হয়ে বিরোধীদের উপত্যকায় যেতে দেওয়া হচ্ছে না। অথচ বিদেশিদের যেতে দেওয়া হচ্ছে। এটা গণতন্ত্রের লজ্জা।

প্রসঙ্গত, গত ১১ বছরে এই প্রথম কাশ্মীর ইস্যুতে ভারতকে সমর্থন করেছেন ইউরোপীয় আইনসভার সদস্যরা। এর আগে জাতিসঙ্ঘ থেকে শুরু করে বিদেশের মাটিতে যখনই সুযোগ হয়েছে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী কাশ্মীর ইস্যুকে হাতিয়ার করেছেন। যদিও কেউই পাকিস্তানের ডাকে সাড়া দেয়নি।

নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © gtbnews24.com
Web Site Designed, Developed & Hosted By ALL IT BD 01722461335