শনিবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২২, ০৭:৫৩ অপরাহ্ন

নোটিশঃ
Gtbnews24.com এর হেড অফিস স্থানান্তর করা হয়েছে। বতর্মান ঠিকানাঃ মাঝিড়া,শাজাহানপুর,বগুড়া।

বগুড়ার ধুনটে আবারো আলোচনার শীর্ষে ইউপি সদস্য- আঃ কাদের

এম,এ রাশেদ,বগুড়া জেলা প্রতিনিধি:  একটি জনপথকে আধুনিকীকরণ ও উন্নত করতে এমন কিছু মানুষের শুভাগমন ঘটে,যাঁরা আপন প্রতিভা যোগ্যতা ও কর্মের মাধ্যমে সমাজ তথা দেশকে আলোকিত করেন। তেমনই একজন মানুষ নিশ্চিন্তপুর গ্রামের কৃতিসন্তান সবার পরিচিত ও প্রিয় মুখ ইউপি সদস্য মোঃ আব্দুল কাদের।
হাস্যজ্জ্বল,সদালাপী,পরোপোকারী,দানবীর মানুষটির জন্ম ৭ই মার্চ ১৯৭৬, ছয় নং ওয়ার্ডের নিশ্চিন্তপুর গ্রামে। আব্দুল কাদের ১৯৮৫ সালে নিশ্চিন্তপুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় থেকে পঞ্চম শ্রেনী পাশ করেন। ১৯৯০ সালে ধানগড়া মডেল হাইস্কুল থেকে কৃতিত্বের সাথে এসএসসি পাশ করেন। তাঁর পিতা মোঃ আবু সামা শেখ ছিলেন গ্রামের একজন স্বনামধন্য মানুষ। আব্দুল কাদের কর্ম জীবন হিসাবে পৈত্তিক সম্পত্তি দেখা শোনার পাশাপাশি ব্যবসা বানিজ্য করেন।
পল্লিগ্রামের সংখ্যাগরিষ্ঠ জনগনের উৎসাহ ও ভালবাসায় তিনি ২০১২ সালে মথুরাপুর ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে(নিশ্চিন্তপুর,কুড়িগাঁতি,প্রতাপখাদুলী) ৬ নং ওয়ার্ডে ইউপি সদস্য নির্বাচিত হন। দ্বিতীয়বার তিনি ২০১৬ সালে বিপুলসংখ্যক ভোট পেয়ে ইউপি সদস্য হিসাবে নির্বাচিত হন। তবে তৃতীয় বারের মত আবারো তিনি জনগনের আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে পরিনত হয়েছেন। যতদূর জানতে পারা যায়,তিনি এখনো জনসমর্থনের দিক দিয়ে অনেকাংশে এগিয়ে আছেন।
কেন তিনি আলোচনার শীর্ষে এ প্রসঙ্গে স্বচিত্র প্রতিবেদন সংগ্রহ করতে গিয়ে জানা যায়,তাঁর সুদৃঢ় নেতৃত্বে ৬ নং ওয়ার্ডটি এখন মথুরাপুর ইউনিয়নের একটি মডেল জনপদ হিসাবে পরিনত হয়েছে। দৃশ্যমান উন্নয়নগুলোর মধ্যে-নিশ্চিন্তপুর, প্রতাপখাদুলী,কুড়িগাঁতি গ্রামে বেশ কিছু জায়গায় আর সিসি রাস্তা তৈরী,ইটের ছলিং,কালভার্ট,রাস্তা সুরক্ষা বাঁধ,ঈদগাঁ,কবরস্থানের রাস্তা ও নিশ্চিন্তপুর বটতলা সংলগ্ন খেলার মাঠে গোলচত্বর নির্মান বিশেষ ভাবে উল্লেখযোগ্য। তাঁর একান্ত প্রচেষ্টা ও ইউপি চেয়ারম্যান হারুন অর রশিদ সেলিমের সার্বিক সহযোগীতায় উক্ত ওয়ার্ডকে শতভাগ বিদ্যুতায়ন করা সম্ভোব হয়।
শিক্ষা অনুরাগী,সামাজিক ন্যায় বিচার,শিষ্টাচার,ও মাদক বিরোধী কার্যক্রমে তিনি অনেকের নিকট প্রশংসিত হয়েছেন। আব্দুল কাদের ইউপি সদস্যর পাশাপাশি বিল ছয়ালী সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সভাপতি এবং নিশ্চিন্তপুর পুরাতন জামে মসজিদের সাধারন সম্পাদক ও উক্ত গ্রামের কবরস্থান উন্নয়ন কমিটির সাধারন সম্পাদক হিসাবে নির্বাচিত হন। তিনি দরিদ্র অসহায় মানুষদের জন্য স্বচ্ছতার সাথে বয়স্ক বিধবা প্রতিবন্ধী ভাতা কার্ড সুসম বন্টের মাধ্যমে মানবতার সেবক হিসাবে পরিচিত।
আসন্ন মথুরাপুর ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন প্রসঙ্গে জিজ্ঞাস করলে তিনি জানান,আমি জনগনের সেবক হয়ে জনগনের পাশে কাজ করে যেতে চাই। আমার সাধ্যমত সরকারী সম্পদের যথাযথ ব্যবহার করে ৬ নং ওয়ার্ডকে সুসজ্জিত করতে অঙ্গীকার বদ্ধ । ইনশাআল্লাহ আগামী ইউপি নির্বাচনে সকলের ভালোবাসায় তৃতীয় বারের মত আবারো ইউপি সদস্য প্রার্থী হিসাবে আপনাদের দোয়া প্রত্যাশী। আমার দৃঢ় বিশ্বাস জনগন যথাযথ মূল্যয়নের মাধ্যমেই যোগ্য প্রার্থীকে নির্বাচিত করবেন। আমি ৬ নং ওয়ার্ড বাসিকে জানাই আন্তরিক ভালবাসা,কৃতজ্ঞতা ও অভিনন্দন ।

নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © gtbnews24.com