শনিবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২২, ০৮:০৯ অপরাহ্ন

নোটিশঃ
Gtbnews24.com এর হেড অফিস স্থানান্তর করা হয়েছে। বতর্মান ঠিকানাঃ মাঝিড়া,শাজাহানপুর,বগুড়া।

নীলফামারীর জলঢাকা,ডোমার ও ডিমলায় শিলা বৃষ্টিতে ফসলের ব্যাপক ক্ষতি ॥

মহিনুল ইসলাম সুজন,বিশেষ প্রতিনিধি॥   নীলফামারীর জলঢাকা, ডোমার ও ডিমলায় শিলা বৃষ্টিতে ঘড় বাড়ীসহ  ফসলের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। নীলফামারী জেলা প্রশাসক খালেদ রহীম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। শুক্রবার (৩০ মার্চ) সকালের দিকে জেলার ডোমার ও ডিমলায় ১২ টি ইউনিয়নের প্রায় ৩৫০ বসত ঘরের টিনের চাল শিলার আঘাতে ফুটো হয়ে গেছে। এ ছাড়া, ডিমলায় শিলা বৃষ্টিতে ৩জনের আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।ডোমারের ক্ষতিগ্রস্থ ইউনিয়ন গুলো হলো, কেতকিবাড়ী, গোমনাতী, ভোগডাবুড়ি, বামনিয়া ও পাঙ্গা মটুকপুর।এদিকে, ডিমলার উল্লেখিত ক্ষতিগ্রস্ত ইউনিয়ন গুলো হলো- ডিমলা সদর, বালা পাড়া, পশ্চিম ছাতনাই, পূর্ব ছাতনাই, গয়াবাড়ী,নাউতারা,খালিশা চাপানী, টেখাখড়িবাড়িও খগাখড়িবাড়ী। এইসব এলাকার জনপ্রতিনিধিরা ঘটনার বিষয়ে নিশ্চিত করেছেন ।

জেলা কৃষি বিভাগের তথ্যমতে, হঠাৎ ভারী শিলা বৃষ্টির কারনে জেলার ডোমার ও ডিমলা উপজেলায় ভুট্রা, মরিচ, পেঁয়াচ, বোরো ক্ষেতসহ অন্যান্য ফসল ও বাড়ী ঘরের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে।

শিলা বৃষ্টির সময় মাঠ থেকে বাড়ী ফেরার পথে ডিমলার বালাপাড়া ইউনিয়নের চিত্তরঞ্জন, মিনা বেগম ও রমজান আলী নামের তিনজন গুরুতর আহত হয়েছে। আহতদের স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।

অপরদিকে, জেলার জলঢাকা উপজেলার গোলনা, শিমুলবাড়ী, মিরগঞ্জ ইউনিয়নে ও সৈয়দপুরে হালকা ও মাঝারী ধরনের শিলা বৃষ্টি হয়েছে।নীলফামারী জেলা প্রশাসক খালেদ রহীম বলেন, প্রত্যেকটি উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তাকে সরেজমিনে পরিদর্শন করে সঠিক তথ্য ও ক্ষতিগ্রস্থ কৃষকের তালিকাও করতে বলা হয়েছে।একই কারনে দীর্ঘক্ষন বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন হযে পড়ে ওইসব এলাকা ।

নীলফামারীতে ইয়াবা ও হিরোইনসহ বিভাগীয় মাদক ব্যবসায়ী  গ্রেফতার ॥

মহিনুল ইসলাম সুজন,বিশেষ প্রতিনিধি॥ রংপুর বিভাগীয় মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতারকৃত রনি মিয়াকে শুক্রবার সকালে আদালতের মাধ্যমে নীলফামারী জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

নীলফামারী থানার এসআই হারিছুর রহমান সুজনের নেতৃত্বে বৃহস্পতিবার বিকেলে মাদক বিরোধী অভিযানে দায়িত্বরত অবস্থায় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে নীলফামারী-সৈয়দপুর প্রধান সড়কের শিমুলতলী বাজার নামক স্থানে অবস্থান নেয়। সেখানে সৈয়দপুরগামী খেয়া পরিবহন নামের একটি বাসকি আটক করে। পুলিশের উপস্থিতি বুঝতে পেয়ে জনৈক রনি মিয়া কালো রং এর ব্যাগ নিয়ে সুকৌশলে পালানোর চেষ্টা কালে পুলিশ তাকে আটক করে। পরে তার শরীর তল্লাশী করে ১শ পিস ইয়াবা ও প্রায় ৭ গ্রাম হিরোইন উদ্ধার করা হয়। আটককৃত রনি মিয়া জানান, নীলফামারী শহরের প্রগতিপাড়া(কিচেন মার্কেটের পার্শ্বে) আব্দুস ছাত্তারের ছেলে সাইফুল ইসলামের কাছ থেকে ইয়াবা ও হিরোইন ক্রয় করে বিক্রির উদ্দেশ্যে রংপুর নিয়ে যাচ্ছিল।

সূত্র জানায়, রংপুর জেলার গঙ্গাচড়া উপজেলার পূর্ব নবনীদাস চেংমারী গ্রামের হোসেন আলীর ছেলে রনি মিয়া রংপুর বিভাগের ৮টি জেলায় দীর্ঘদিন ধরে বিভিন্ন ধরনের মাদক বিক্রয় করে আসছে। প্রতিটি জেলায় মাদক সিন্ডিকেটের মাধ্যমে ইউনিয়ন পর্যায় পর্যন্ত মাদক পৌছে দিচ্ছে তাদের প্রতিনিধিরা। বিভাগীয় এই মাদক ব্যবসায়ীকে রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করলে অনেক রাঘব বয়ালের নাম উঠে আসবে। নীলফামারী থানার ওসি বাবুল আকতার বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © gtbnews24.com