রবিবার, ১৭ অক্টোবর ২০২১, ০৬:১৫ অপরাহ্ন

নোটিশঃ
Gtbnews24.com এর হেড অফিস স্থানান্তর করা হয়েছে। বতর্মান ঠিকানাঃ মাঝিড়া,শাজাহানপুর,বগুড়া।
সংবাদ শিরোনামঃ
বগুড়ার শেরপুরে বিশালপুর ইউনিয়ন বিএনপির দ্বি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত কাহালু সদর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের বর্ধিত সভা থানায় তদবিরে গিয়ে ধর্ষণ চেষ্টা মামলার আসামী গ্রেফতার মুহিবুল্লাহ হত্যার ঘটনা অনাকাঙ্ক্ষিত: পররাষ্ট্র সচিব আয়রন ব্রিজ তো নয় যেন মরণ ফাঁদ উখিয়ায় বিভিন্ন অপরাধে জড়িত রোহিঙ্গা সন্ত্রাসী গ্রেফতার ৬ শিবগঞ্জে সম্ভাব্য চেয়ারম্যান প্রার্থী শাওনের নির্বাচনী উঠান বৈঠক শিবগঞ্জে কৃষকের কলা বাগানের ছড়িতে মেডিসিন ষ্প্রে করে ২শতাধিক কলা নষ্ট করার অভিযোগ শিবগঞ্জ থানা পুলিশের আয়োজনে দূর্গাপূজা উপলক্ষে মত বিনিময় সভা ধামইরহাটে জাহানপুর ইউনিয়নে নৌকার মাঝি হতে চান ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সভাপতি লুইছার রহমান

কাহালুতে রাতের আঁধারে সওজের পাকা রাস্তা কেটে ড্রেন পার

সাহিন সরদার কাহালু (বগুড়া) প্রতিনিধিঃ বাংলাদেশ সড়ক ও জনপদ বিভাগের বগুড়া-তালোড়া পাকা রাস্তা অবৈধ ভাবে রাতের অন্ধকারে কেটে পাইপ বসিয়ে বাসা-বাড়ীর ও মার্কেটের পানি নিষ্কাশনের ড্রেন পার কারার অভিযোগ। এলাকাবাসীর মৌখিক অভিযোগের ভিত্তিতে গত রোববার বগুড়া-তালোড়া রাস্তার কাহালু উপজেলা পাঁচপীর এলাকায় সরেজমিনে গিয়ে স্থানীয় লোকজনের সাথে কথা বলা হলে তারা জানান, মাওঃ বজলুর রশিদ মিয়া তার বাসা বাড়ীর ও মার্কেটর পানি নিষ্কাশনের জন্য রাতের আধারে অবৈধ ভাবে সড়ক ও জনপদ বিভাগের অতি গুরুত্বপূর্ণ পাকা (কার্পেটিং) রাস্তাটি কেটে প্লাষ্টিকের পাইপ বসিয়ে ড্রেন নির্মাণ করে, রাস্তাটির ব্যাপক ক্ষতি করেছেন। তাদের ভাষ্য হলো রাস্তা নির্মাণের সময় ইট-পাথর ও খোয়া যে ভাবে রোলার দিয়ে ডেবে শক্ত ও মজবুত করার পর পিজ ঢালায় করা হয়, সেটি না করে তড়ি-ঘড়ি করে সামান্য খোয়া, বালু ও সিমেন্ট মিশিয়ে রাতের আধারে ড্রেনের পাইপটি ঢেকে দেওয়া হয়েছে। ফলে যানবাহন চলাচলের সময় যেকোন মূহুর্ত্বে ভেঙ্গে যেতে পারে। উল্লেখ্য মাওঃ বজলুর রশিদ মিয়া ছাড়াও স্থানীয় প্রভাবশালী জনৈক আব্দুল মান্নানও একই ভাবে রাতের আধারে গুরুত্বপূর্ণ রাস্তাটি কেটে পাইপ দিয়ে ড্রেন পার করে, তার দই-মিষ্টি কারখানার পানি নিষ্কাশন করছেন। এ ব্যাপারে মাওঃ বজরুর রশিদ মিয়ার সাথে মোবাইল ফোনে কথা বলা হলে, তিনি রাস্তা কেটে পাইপ বসিয়ে ড্রেন পার করার কথা স্বীকার করে, তিনি আরও জানান, শুধু আমিই না এর আগে একই রাস্তা কেটে জনৈক ব্যাক্তি পাইপ বসিয়ে ড্রেন পার করেছে, আগে তাকেই আপনারা ধরেন। বাদল, দুলাল, শাকিম, আব্দুল মান্নান জুয়েল, রাজু, শামীমা, রুবেল সহ স্থানীয় লোকজনের সাথে বিষয়টি নিয়ে কথা বলা হলে, তারা তীব্র ক্ষোভ প্রকাশ করে জানান, জনবহুল ও গুরুত্বপূর্ণ সওজে এই রাস্তাটি রক্ষায়, অবৈধ ড্রেন নির্মান কারীর বিরুদ্ধে জরুরী ভিত্তিতে ব্যবস্থা না নেওয়া হলে, অবৈধ ভাবে রাস্তা কাটার প্রবণতা বৃদ্ধি পাবে। রাস্তা কাটার বিষটি স্থানীয় প্রেকৌশল অফিসে অবগত করানো হলে, তিনি জানান রাস্তা কাটা বা রাস্তার উপর দিয়ে কর্তৃপক্ষের অনুমতি ছাড়া ড্রেন নির্মাণ সম্পূর্ণ অবৈধ। তবে রাস্তাটি সওজ এর হওয়ায় আমাদের কিছু করার নাই।

নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © gtbnews24.com